ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষার্থী ফাহমিদা হক লাবণ্য।

রাইড শেয়ারিং সেবা পাঠাওয়ের মাধ্যমে বিশ্ববিদ্যালয়ে যাওয়ার পথে নিহত হয়েছেন ফাহমিদা হক লাবণ্য (২১) নামের ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষার্থী।

বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টার দিকে রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে জাতীয় হৃদরোগ ইন্সটিটিউট ও হাসপাতালের পাশের রাস্তায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। বিশ্ববিদ্যালয়টির কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং (সিএসই) বিভাগের ছাত্রী ছিলেন লাবণ্য।

পুলিশ জানিয়েছে, শ্যামলী থেকে বাইকে রাইড শেয়ারিং সেবা পাঠাওয়ের মাধ্যমে ইউনিভার্সিটি যাচ্ছিলেন লাবণ্য। শেরেবাংলা নগরে জাতীয় হৃদরোগ ইন্সটিটিউট ও হাসপাতালের সামনে আসার পর তাকে বহন করা মোটরসাইকেলটির সঙ্গে একটি পিকআপ ভ্যানের সাথে ধাক্কা লাগে। এ সময় গুরুতর আহত হন লাবণ্য।

পরে পথচারীরা তাকে সেখান থেকে উদ্ধার করে সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

শেরে-বাংলা নগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জানে আলম মুন্সি বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, একটি পিকাপের সঙ্গে ধাক্কা লেগে দুর্ঘটনাটি ঘটে। ঘটনার পর থেকে পাঠাওয়ের ওই চালক পলাতক রয়েছে, তাকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না।  এছাড়া দুর্ঘটনাটি কিভাবে সংগঠিত হয়েছে তাও জানা যায়নি।

তিনি আরও জানান, নিহতের স্বজনদের খবর দেওয়া হয়েছে। তার মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে রাখা আছে।